UP, Muslim Man Thrashed in UP Mandir

UP তে মন্দিরেই মুসলিম শ্রমিককে মারধর করলো হিন্দুত্ববাদী চরমপন্থিরা

UP: মাত্র কিছুদিন আগেই উত্তর প্রদেশেরই একটি মন্দিরে প্রবেশ করে পানি খাওয়ার অপরাধে মারধোর করা হয়েছিল এক মুসলিম বালককে। সেই ধরনেরই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলো আবার সেই উত্তর প্রদেশেই। একটি ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে যে এক মুসলিম শ্রমিককে বেঁধে রেখে ব্যাপক মারধোর করেছে হিন্দুত্ববাদী (Hindutva Terrorists) দুষ্কৃতীরা। অভিযুক্তদের মধ্যে রয়েছে মন্দিরের ধর্মগুরুও।

“মন্দিরের পুরোহিত আমার নখ এবং আঙ্গুল কেটে শ্মশানে আমার দেহ পুড়িয়ে দেওয়ার বিষয়ে কথা বলছিলেন” -দানিশ।

একদল হিন্দুত্ববাদী ধর্মান্ধরা উত্তর প্রদেশের ইটাওয়াহ জেলার একটি মন্দিরে দানিশ নামের এক মুসলিম শ্রমিককে মারধর করে। তারা তাকে দড়ি দিয়ে বেঁধে এবং পাইপ দিয়ে আঘাত করেছিল।

নিউজ ১৮-এর হিন্দি রিপোর্ট অনুসারে স্থানীয় বিজেপি নেতা শৈলেন্দ্র ভার্মা এই হামলায় জড়িত ছিলেন।

দানিশ জানালেন তিনি মন্দিরে শ্রমিক হিসাবে কাজ করছিলেন। মন্দিরের নির্মাণ কাজ পরিচালনা করা লোকদের কাছে তাঁর নাম প্রকাশ না হওয়া পর্যন্ত সবকিছু ঠিক ছিল।

তেজাস নিউজ নামে স্থানীয় একটি সংবাদমাধ্যমের সাথে কথা বলার সময় দানিশ বলেছে যে যখন তিনি অর্থের জন্য জিজ্ঞাসা করলেন তখন তাকে একটি ঘরে ডেকে তার নাম বলতে বলা হয়েছিল। তিনি যখন দানিশ বলেছিলেন, তারা জিজ্ঞাসা করেছিল, “তুমি কি মুসলিম?” এর পরে, তারা মূল দরজায় তালা দিয়ে আমাকে দড়ি দিয়ে বেঁধে এবং পাইপ দিয়ে মারধর শুরু করে”।

UP তে মন্দিরেই মুসলিম শ্রমিককে মারধর করলো হিন্দুত্ববাদী চরমপন্থিরা

এই প্রতিবেদন শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

CAPTCHA